জুন ১৯, ২০২১
MIMS TV
আন্তর্জাতিক এই মাত্র পাওয়া ব্রেকিং নিউজ

চীনা ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট আছে ট্রাম্পের

ক্ষমতায় বসার পর থেকেই চীনের বিরুদ্ধে একের পর এক কঠোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। অথচ তার নিজেরই চাইনিজ ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট রয়েছে বলে নিউইয়র্ক টাইমসের এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে।

চাইনিজ ব্যাংকে নিজের অ্যাকাউন্ট থাকার সত্যতা ট্রাম্পের তরফ থেকেও স্বীকার করা হয়েছে। তার এই অ্যাকাউন্টটি ২০১৩ ও ২০১৫ সময়ের মধ্যে ট্রাম্প ইন্টারন্যাশনাল হোটেল ম্যানেজমেন্ট নিয়ন্ত্রণ করত বলে প্রতিবেদনটিতে বলা হয়েছে।

ট্রাম্পের এক মুখপাত্র বলেছেন, এশিয়া অঞ্চলে হোটেল ব্যবসা সংক্রান্ত সম্ভাব্য কার্যক্রম চালিয়ে নেওয়ার জন্য অ্যাকাউন্টটি খোলা হয়েছিল।

ক্ষমতায় আসার পর থেকেই চীনে ব্যবসা কার্যক্রম চালানোর ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিষ্ঠানগুলোর ওপর কড়াকড়ি আরোপ করেন ট্রাম্প। ধীরে ধীরে দেশটির সঙ্গে বাণিজ্য যুদ্ধে জড়িয়ে পড়ে যুক্তরাষ্ট্র।

সম্প্রতি ট্রাম্পের ট্যাক্স সম্পর্কিত তথ্য পাওয়ার সূত্র ধরে চাইনিজ ব্যাংকে থাকা তার অ্যাকাউন্টের খবর প্রকাশ করে নিউইয়র্ক টাইমস। এর আগে তাদের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রেসিডেন্ট হওয়ার পর ২০১৬ ও ২০১৭ বছরে মাত্র ৭৫০ ডলার কর দিয়েছেন ট্রাম্প। চাইনিজ অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে স্থানীয় পর্যায়ে কর দিয়েছেন ১ লাখ ৮৮ হাজার ৫৬১ ডলার।

আসছে ৩ নভেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন সামনে রেখে ট্রাম্প ডেমোক্রেটিক প্রতিদ্বন্দ্বী জো বাইডেন এবং চীনের আরো বেশি সমালোচনামুখর ট্রাম্প। চীনের সঙ্গে বাণিজ্যে বাইডেনের ছেলে হান্টারের সম্পৃক্ততা এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট থাকাকালে চীনের সঙ্গে বাইডেনের চুক্তিগুলো নির্বাচনী প্রচারণায় ব্যবহার করছে ট্রাম্প শিবির।

ট্রাম্প অর্গানাইজেশনের আইনজীবী অ্যালান গার্টেন নিউইয়র্ক টাইমসকে জানান, ‘যুক্তরাষ্ট্রে অফিস থাকায় স্থানীয় পর্যায়ে কর পরিশোধের জন্য ট্রাম্প ইন্টারন্যাশনাল হোটেল ম্যানেজমেন্ট চাইনিজ ব্যাংকে একটি অ্যাকাউন্ট খুলেছিল। ২০১৫ সাল থেকে অফিসের কাজ বন্ধ থাকার পর থেকে কোনো চুক্তি, লেনদেন বা অন্য কোনো ব্যবসা কার্যক্রম করা হয়নি। ব্যাংক অ্যাকাউন্টটি খোলা থাকলেও অন্য কোনো উদ্দেশে এটা ব্যবহার করা হয়নি।’

দেশে ও বিদেশে ট্রাম্পের অনেক ব্যবসা কার্যক্রম রয়েছে। এর মধ্যে স্কটল্যান্ড ও আয়ারল্যান্ডসহ অনেক দেশে বিলাসবহুল পাঁচ তারকা হোটেল ব্যবসার চেইন রয়েছে তার। ব্যবসা কার্যক্রম চালানোর জন্য ট্রাম্পের চীনের পাশাপাশি ব্রিটেন ও আয়ারল্যান্ডে ব্যাংক অ্যাকাউন্ট রয়েছে।

Related posts

৫২-তেই থেমে গেলেন ব্রিটিশ অভিনেত্রী হেলেন

Irani Biswash

অভিমান ভুলে বড় ভাইয়ের সাথে ঐক্যবদ্ধ কাদের মির্জা

Irani Biswash

২০২১ মার্চে নিউজিল্যান্ড সফরে যাবে বাংলাদেশ : যেতে পারবে না কোনো সাংবাদিক

admin

Leave a Comment

Translate »