জুলাই ৩১, ২০২১
MIMS TV
আন্তর্জাতিক মু: মাহবুবুর রহমান

রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে ওআইসি সদস্য দেশগুলোকে ঐক্যবদ্ধ হবার আহবান

মু: মাহবুবুর রহমান

ইসলামোফোবিয়া বা ইসলাম নিয়ে ভীতি মোকাবিলায় মুসলমানদের ঐক্যের ওপর গুরুত্ব দিয়ে পশ্চিম আফ্রিকার দেশ নাইজারে অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো অর্গানাইজেশন অব ইসলামিক কোঅপারেশনের (ওআইসি) পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠক। এটি ছিল ৫৭ জাতির ওআইসির পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের কাউন্সিল বা সিএফএম (কাউন্সিল অফ ফরেন মিনিস্টার্স) বৈঠকের ৪৭তম অধিবেশন। নাইজারের রাজধানী নিয়ামে ২৭ থেকে ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হয় ওআইসি পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের এ বৈঠক।

ওআইসির পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠকটি উদ্বোধন করেন নাইজারের প্রেসিডেন্ট মাহামাদু ইসোওইফু। অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন ওআইসির মহাসচিব ড. ইউসুফ আল ওথাইমিন। দেশটির রাজধানী নাইজারের মহাত্মা গান্ধী আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হয় এবারের অধিবেশন।

ওআইসির পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা দুই দিন ধরে রাজনৈতিক, মানবিক, অর্থনৈতিক, আর্থ-সামাজিক ও সাংস্কৃতিক এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পর্কিত বিভিন্ন বিষয়, গণমাধ্যম এবং ওআইসির প্ল্যান অব একশন-২০২৫ এর বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন।

বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন ও পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত হওয়ায় এবারের সম্মেলনে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করেন রাষ্ট্রদূত ও ওআইসির স্থায়ী প্রতিনিধি ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, এবারের সম্মেলনে রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী সেনা অভিযানের মুখে প্রাণ বাঁচাতে বাংলাদেশে  পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের মিয়ানমারে মর্যাদাপূর্ণ প্রত্যাবাসন না হওয়া পর্যন্ত রাজনৈতিক ও মানবিক সহায়তা অব্যাহত রাখতে ওআইসির সদস্য দেশগুলোর প্রতি আহবান জানান। এছাড়া ইসলামোফোবিয়ার বিষয়টি সমাধানের জন্য সংশ্লিষ্টদের কার্যকরভাবে জড়িত হওয়ার আহ্বান জানান তিনি। রাষ্ট্রদূত ওআইসির সদস্য দেশগুলোর জন্য করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিনের প্রাপ্যতা, অর্থনীতি পুনর্নির্মাণের জন্য সদস্য দেশগুলোর আন্তঃবাণিজ্য বৃদ্ধি এবং প্রয়োজন অনুযায়ী সদস্য দেশগুলোর জন্য মানবিক সহায়তার ওপর জোর দেন।

এসময় আন্তর্জাতিক বিচারিক আদালত (আইসিজে) তে রোহিঙ্গা গণহত্যা প্রশ্নে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে পশ্চিম আফ্রিকার দেশ গাম্বিয়াকে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ৫ লাখ মার্কিন ডলার অর্থ সহায়তা দেয়ার কথাও জানান জাবেদ পাটোয়ারী। তিনি বলেন, গাম্বিয়াকে আইনি লড়াইয়ে সহায়তার জন্য ইতোমধ্যে ওআইসির তহবিলে এ অর্থ প্রদান করেছে বাংলাদেশ। আর ওআইসি সেক্রেটারিয়েট জানিয়েছে, রোহিঙ্গা গণহত্যা মামলা লড়তে গাম্বিয়াকে সৌদি আরব, তুরস্ক, নাইজেরিয়াও অর্থ সহায়তা দিয়েছে।

জাবেদ পাটোয়ারী আরও জানান, ওআইসির জেনারেল সেক্রেটারিয়েট এখন আইসিজেতে গাম্বিয়ার লড়াইয়ে সহায়তার জন্য একটি বিশেষ হিসাব খুলেছে। আর পশ্চিম আফ্রিকার দেশটিও তহবিলের জরুরি প্রয়োজনের ইঙ্গিত দিয়েছে। গাম্বিয়ার বিচারমন্ত্রী দাউদা এ জালো সিএফএম-এ রোহিঙ্গা মামলার সর্বশেষ তথ্য উপস্থাপন করে বলেন, “এ আইনি মামলার জন্য আমি ওআইসির সদস্য দেশগুলোর কাছে জরুরি, স্বেচ্ছাপ্রণোদিত ও গুরুত্বপূর্ণ অবদানের আহ্বান জানাচ্ছি।” সিএফএম-এ দুই দিনের আলোচনায় রোহিঙ্গা সঙ্কট মূল আলোচ্য বিষয় হিসাবে উঠে আসে বলে জানা গেছে।

গত বছরের নভেম্বরে ওআইসি, কানাডা ও নেদারল্যান্ডের সমর্থনে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে আইসিজে’তে মামলা করে গাম্বিয়া। আইসিজেতে ১০ থেকে ১২ ডিসেম্বর এর প্রথম শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। ২৩ জানুয়ারি আইসিজে মিয়ানমারে রোহিঙ্গা গণহত্যা বন্ধে অন্তবর্তীকালীন আদেশ জারি করে।

ওআইসির মহাসচিব ড. ইউসুফ আল ওথাইমিন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভাষণ দেন। এ সময় তিনি বলেন, মত প্রকাশের স্বাধীনতা মানে কোনও ধর্মীয় প্রতীককে অপমান করা নয়। মহাসচিব আরও বলেন, আমরা ইসলাম বিরোধী বক্তব্যের নিন্দা জানাই।

এবারের সম্মেলনের মুল প্রতিপাদ্য হল, ‘শান্তি ও উন্নয়নের জন্য সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে একতাবদ্ধ হওয়া’। ওআইসি মহাসচিব বলেন, সন্ত্রাসবাদ প্রত্যাখ্যাত হয়েছে। এর যে কোনও ন্যায্যতাও অগ্রহণযোগ্য। তিনি করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সদস্য দেশগুলোর নেওয়া বিভিন্ন পদক্ষেপের প্রশংসা করেন। তিনি বলেন, সন্ত্রাসবাদ এই অঞ্চল ও বিশ্বব্যাপী এক অন্যতম বিপজ্জনক হুমকি। তিনি সন্ত্রাসবাদ মোকাবেলায় শান্তি ও উন্নয়নের জন্য মুসলিম দেশগুলোকে একতাবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান।

এবারের সম্মেলনে রোহিঙ্গা সমস্যা ছাড়াও ফিলিস্তিন সমস্যা, কাশ্মীর ইস্যু, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে লড়াই, ইসলামোফোবিয়া ও ধর্মীয় অবমাননার বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয় বলে জানায় আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যমগুলো। এছাড়া করোনা ভাইরাস ভ্যাকসিনের সুষম বন্টন নিয়েও বৈঠকে আলোচনা হয়। আগামী বছর ওআইসি,  সিএফএম (কাউন্সিল অফ ফরেন মিনিস্টার্স) এর পরবর্তী ৪৮ তম অধিবেশন পাকিস্তানে অনুষ্ঠিত হবে বলেও বৈঠকে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

Related posts

অবশেষে নবনির্বাচিত বাইডেনকে অভিনন্দন জানালেন পুতিন

Mims tv : Powered by information

কানাডায় সম্ভাব্য বাজেট ঘোষণা ১৯ এপ্রিল

Irani Biswash

নিউজিল্যান্ডে ভূমিকম্প, সুনামি সতর্কতা জারি তবে নিরাপদে আছে টাইগাররা

Mims tv : Powered by information

Leave a Comment

Translate »